রবিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২২, ০২:০১ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
শিরোনাম:
ডেমোগ্রাফিক ডিভিডেন্টের সুবিধা নিতে হলে শরীরচর্চার বিকল্প নেই – ডেপুটি স্পীকার গোবিন্দগঞ্জের সাঁওতাল নারীদের ক্রীড়া ও ঐতিহ্যবাহী তীর ছোড়া প্রতিযোগিতা ও সাংস্কৃতিক উৎসব গাইবান্ধা জেলা পরিষদ চেয়ারম্যানের আনুষ্ঠানিক দায়িত্ব গ্রহণ সাদুল্লাপুরে ব্যবসায়ী জ্যোতিশ চন্দ্র রহস্যজনকভাবে নিখোঁজ কুড়িগ্রামে মহিষের গাড়ীতে বিয়ে আত্রাইয়ের মনিয়ারী ইউনিয়ন আ”লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত গোবিন্দগঞ্জে ইয়াবা ও ফেন্সিডিলসহ দুই মাদক ব্যবসায়ি আটক সাংবাদিকের বিরুদ্ধে মামলা, প্রতিবাদে গাইবান্ধায় মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ গাইবান্ধা প্রেসক্লাবের কার্যনির্বাহী কমিটির বিশেষ সভা গাইবান্ধার তুলশিঘাটে বাস চাপায় নানি-নাতনি নিহত

পুঠিয়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় রেলওয়ের কর্মকর্তা নিহত

নিজস্ব প্রতিবেদক / ১৩৯ বার পঠিত
প্রকাশের সময়: রবিবার, ২২ ডিসেম্বর, ২০১৯, ১০:৩৫ অপরাহ্ন

পুঠিয়া (রাজশাহী) প্রতিনিধিঃ রাজশাহীর পুঠিয়ায় অজ্ঞাত গাড়ির সঙ্গে মোটরসাইকেলের সংঘর্ষে রেলওয়ের দ্বিতীয়  শ্রেণির এক কর্মকর্তা নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় মোটরসাইকেল আরোহী আরো একজন গুরুতর আহত হয়েছে। আজ (২২ ডিসেম্বর) দুপুর দুইটা থেকে আড়াইটার দিকে উপজেলার বানেশ্বর ইউনিয়নের পোল্লাপুকুর নামক এলাকায় ঢাকা-রাজশাহী মহাসড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত রেলওয়ে কর্মকর্তার নাম আবু সালেক (২৬) তিনি বাগমারা উপজেলার তাহেরপুর পৌর এলাকার আনোয়ার হোসেনের ছেলে এবং রাজশাহী রেলওয়ের সহকারী লোক মাস্টার পদে কর্মরত ছিলেন। আহত অপরজনের নাম দিপু (২৭) তিনি নওগাঁর মান্দা উপজেলার বাসিন্দা ফেরদৌস আলীর ছেলে। তারা দুজনই মোটরসাইকেল আরোহী এমনকি কলেজ পড়ুয়া অবস্থায় তারা একই রুমে থেকে পরাশোনা করেছেন।
বিষয়টি নিশ্চিত করে পবা হাইওয়ে পুলিশের পুঠিয়ায় অবস্থিত ফাঁড়ির ইনচার্জ কাজল কুমার নন্দী
হাইওয়ে পুলিশ জানান, রবিবার দুপুর দুইটা থেকে আড়াই টার দিকে ঢাকা-রাজশাহী মহাসড়ক হয়ে সালেক ও দিপু মোটরসাইকেল যোগে (রাজশাহী-ল ১১-৮৭৬৭) রাজশাহীর দিকে যাচ্ছিলেন। পথে বানেশ্বর পোল্লাপুকুর নামক স্থানে বিপরীতগামি অজ্ঞাত গাড়ির সাথে তাদের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এতে মোটরসাইকেলের দু’জনই আহত হন। তাদের মধ্যে সালেককে স্থানীয়রা গুরুতর অবস্থায় উদ্ধার করে বানেশ্বর বাজারে অবস্থিত পল্লী চিকিৎসক স্বপন কুমার দাসের কাছে নিয়ে গেলে তিনি সালেককে মৃত ঘোষনা করেন এবং আহত দিপুকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরন করেন।
এসআই কাজল কুমার নন্দী জানান, সালেক রাজশাহী রেলওয়েতে দ্বিতীয় শ্রেনীর কর্মকর্তা হিসেবে কর্মরত ছিলেন এবং দিপু তার কলেজ জীবনের রুম মেট বলে জানা গেছে। তারা মোটরসাইকেল নিয়ে রাজশাহীর দিকে যাচ্ছিলেন বলে জানা গেলেও ঠিক কোন গাড়ির সাথে তাদের সংঘর্ষ হয়েছে সে বিষয়টি এখনও  নিশ্চিত ভাবে জানা যায়নি। ধারনা করা হচ্ছে নাটোর গামী কোন অজ্ঞাত ট্রাকের সাথে তাদের সংঘর্ষ হয়েছে।
তিনি আরো জানান, মরদেহ ও মোটরসাইকেলটি উদ্ধার করে ফাঁড়িতে নিয়ে আসা হয়েছে এবং তাদের পরিবারের কাছেও খবর দেয়া হয়েছে। এব্যপারে সন্ধ্যা সাড়ে ৬ টা পর্যন্ত মামলা দায়ের হয়নি। মামলা হলে মরদেহের ময়নাতদন্তের জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরন করা হবে। অপরদিকে আহত দিপু হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে। সে বর্তমানে আশঙ্কামুক্ত বলেও জানান তিনি।


এ জাতীয় আরো খবর
এক ক্লিকে বিভাগের খবর